বাংলাদেশি কৃষককে ফেরত দিলো মিয়ানমার

প্রকাশিত: ১৩ই সেপ্টেম্বর ২০২০ ০৬:৪২:০০ | আপডেট: ১৩ই সেপ্টেম্বর ২০২০ ০৬:৪৩:০২ 6
বাংলাদেশি কৃষককে ফেরত দিলো মিয়ানমার

অবশেষে ২৪ ঘণ্টা পর কোনো পতাকা বৈঠক ছাড়াই বাংলাদেশি কৃষক মো. ইউছুফকে ছেড়ে দিয়েছে মিয়ানমার। বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তের ৪৭ নম্বর পিলার এলাকা দিয়ে গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টার দিকে ওই কৃষককে বাংলাদেশে পাঠানো হয়।

এর আগে সোমবার সন্ধ্যায় বান্দরবান জেলার নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ফুলতলী-জারুলিয়াছড়ি এলাকার নোম্যান্সল্যান্ডের ৪৭ নম্বর পিলারের কাছ থেকে তাকে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়। অভিযোগ পাওয়া যায়, মিয়ানমারের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিজিপি তাকে ধরে নিয়ে যায়। তবে মিয়ানমারের উপজাতিরা ইয়াবা বেচাকেনার টাকা নিয়ে তাকে ধরে নিয়ে যায়।

এদিকে, বাংলাদেশ বর্ডার গার্ড (বিজিবি) এ ঘটনায় আজ বুধবার আনুষ্ঠানিকভাবে প্রতিবাদলিপি পাঠানো হবে বলে জানা গেছে।

মো. ইউছুফ মিয়ানমার থেকে ছাড়া পাওয়ার পর জানান, দেশটির কিছু উপজাতি তাকে ধরে নিয়ে গিয়েছিল। তারা পোশাকধারী ছিল না। জারুলিয়াছড়ি এলাকার স্থানীয় ইয়াবা কারবারীদের কাছ থেকে টাকা পায় ওই উপজাতিরা। তারা মনে করেছিল, তাকে ধরে নিয়ে গেলে ওই কারবারীদের কাছ থেকে টাকা আদায় করা যাবে। তবে তিনি (ইউছুফ) এসবের কিছু জানেন না।

নাইক্ষ্যংছড়ির ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল আবছার ইমন এবং যেখানে ঘটনা ঘটেছে সেখানকার ইউপি মেম্বার আলী হোসেন জানান, মিয়ানমারের কিছু উপজাতি লোক ইয়াবার টাকা আদায়ের জন্যই ইউছুফকে ধরে নিয়ে গিয়েছিল। তবে সেই ইয়াবা কারবারীদের নাম পরিচয় পাওয়া যায়নি বলে জানান তারা।

এদিকে, নাইক্ষ্যংছড়ি ১১ বিজিবির অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল শাহ আব্দুল আজিজ আহমেদ জানিয়েছেন, কৃষক ইউছুফকে ধরে নিয়ে যাওয়ার ঘটনায় মিয়ানমার বিজিপিকে (সীমান্তরক্ষী বাহিনী) প্রতিবাদলিপি পাঠানো হবে। এতে সীমান্তে অন্যায়ভাবে ঘোরাফেরা ও অনুপ্রবেশের বিষয়েও প্রতিবাদ জানানো হবে।

লগইন করুন


পাঠকের মন্তব্য ( 0 )